মহেশপুরে স্কুল ছাত্রীর অর্ধ গলিত মরাদেহ উদ্ধার

সেলিম রেজা,মহেশপুর (ঝিনাইদহ) প্রতিনিধি : ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার শ্যামকুড় ইউপির ডাকাতীয়া গ্রামের মাঠ থেকে এক স্কুল ছাত্রীর অর্ধগলিত মরাদেহ উদ্ধার করেছে মহেশপুর থানা পুলিশ।

জানা গেছে,৬ই নভেম্বর সকালে শ্যামকুড় ইউপির গুড়দাহ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ৯ম শ্রেনীতে পড়ুয়া রিতু বর্না (১৭) নামের এক ছাত্রীর লাশ ইউপির ডাকাতীয়া গ্রামের মাঠের রাস্তার পাশে শাফায়েত মিয়ার লিচু বাগানের মধ্যে পচা গলা ও মাথার চুল বিহীন অবস্থায় লাশটি পড়ে থাকতে দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেয় এলাকাবাসী।খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছিয়ে লাশটি উদ্ধার করে লাশের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরী করে ঝিনাইদহ মর্গে প্রেরন করেন। রিতু বর্না ডাকাতীয়া গ্রামের আব্দুর সবুর মন্ডলের মেয়ে।

উল্লেখ্য,প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তুলে গত রোমজান মাসের শেষ সপ্তাহে উপজেলার পান্তাপাড়া ইউপির পদ্মরাজপুর গ্রামের মোমিন তরফদারের কলেজ পড়ুয়া ছেলে সাগর তরফদার (২০) এর সাথে পরিবারের অজান্তে যশোর নোটারী পাবলীক থেকে ১ লাখ টাকা কাবিনে তাদের বিবাহ হয়। কথা ছিল এস এস সি পরিক্ষা দেবার পর বাড়িতে নিবে। কিন্তু কথাটি জানাজানি হওয়ার পর মেয়েটি তার স্বামী সাগরের বাড়িতে চলে যায়।স্বামীর পরিবার এ বিয়ে মেনে না নেওয়ায় তাদের মধ্যে মনোমালিন্য চলতে থাকে। সর্বশেষ মেয়েটি গত ২৯ অক্টোবর আবারও তার স্বামীর বাড়িতে চলে গেলে,ছেলের পরিবার মেয়ের বাবাকে বাড়িতে ডেকে নিয়ে মেয়েটিকে তার বাবার হাতে তুলে দেয়। ঘটনার ২ দিন পর গত ৩১ অক্টোবর মেয়েটি স্বামীর কাছে যাচ্ছে বলে আর ফিরে আসে নি।এঘটনায় মেয়ের পিতা সবুর মন্ডল গত ১লা নভেম্বর মহেশপুর থানায় একটি সাধারন ডায়রীও করেছিলেন। যার নং- ২৭।

রিতুর এই অকাল মৃত্যুতে তার পরিবার ও এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

error: লাল সবুজের কথা !!