সর্বশেষ সংবাদ

বেসরকারী শিক্ষকদের সিকি আনা বোনাস তাও আবার ঈদের পর ! হতাশা গ্রস্ত শিক্ষকরা

জুলফিকার আলী, কলারোয়া (সাতক্ষীরা) প্রতিনিধি: মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরাধীন এমপিওভুক্ত স্কুল ও কলেজের শিক্ষক-কর্মচারীদের ২০১৯ খ্রিষ্টাব্দের ঈদুল ফিতরের উৎসব ভাতার চেক ছাড় হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২৩ মে) অনুদান বণ্টনকারী চারটি ব্যাংকে চেক পাঠানো হয়েছে।

আগামী ৩ জুন পর্যন্ত শিক্ষক-কর্মচারীরা ঈদ বোনাসের টাকা তুলতে পারবে। এ দিকে মে মাসের বেতনও একই সাথে চেক ছাড় হয়েছে। সাতক্ষীরার কলারোয়ায় বেসরকারী শিক্ষকদের মাঝে হতাশার ক্ষোভ আর ভারাক্রান্ত মন নিয়ে পরিবারে চলছে দা কুমড়ার সম্পর্ক ।

ছেলেমেয়ে ও স্ত্রীর সাথে থাকছেনা গভীর ভালবাসা। পাশের বাড়ীর সরকারী চাকুরীজীবি তাদের বেত।ন সময়মত পাওয়ায় যথাযথ ঈদের কেনাকাটা করছে ধুমছে । এটি দেখে ছেলে মেয়ে, স্ত্রীসহ পরিবারের কাছে পারছেনা জবাবদিহিতা করতে এমনটি ঘটছে কলারোয়া বেসরকারী শিক্ষকদের। যদিও আগামী ৩ জুন পর্যন্ত শিক্ষক-কর্মচারীরা ঈদ বোনাসের টাকা তুলতে পারবে, কিন্ত ব্যাংক কর্মকর্তাদের গাফিলতি ও স্বেচ্চাচারিতার কারণে অতীতের এমন নজির আছে বলে ধারণা শিক্ষকদের । তারা বেতনের অ্যাডভায়িস আসে নাই বলে চালিয়ে দেন শেষ মুহুর্ত পর্যন্ত।

আগামী ৩ জুন ব্যাংক খোলা থাকবে পরবর্তীতে ঈদের ছুটি হওয়ায় বেতন পাওয়া সম্ভব হবেনা যেহেতু ঐ দিনই কেবল বেতন জমা হয়ে পরবর্তিতে বেতন উঠানোর তারিখ জানিয়ে দেন শিক্ষকদের। কলারোয়া পানিকাঊরিয়া মাধ্যমকি বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মো: সাইফুল ইসলাম জানান-৩রা জুন ঐ দিন বেতন পাওয়া যাবেনা।

বামনখালী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সদ্য এমপিও ভূক্ত সহকারী শিক্ষক মো: আনছার আলী বলেন, আমার পরিবার নিয়ে আর বোধহয় ঈদ করা হবেনা। বিশেষ সূত্রে জানা যায়-৩রা জুন ক্যালেন্ডারে ব্যাংক খোলা থাকলেও নির্বাহী আদেশে হয়তবা বন্ধ হয়ে যেতে পারেন।

error: লাল সবুজের কথা !!