পীরগঞ্জে বিএনপির অর্ধশত নেতা কর্মীর বিরুদ্ধে সন্ত্রাস ও নাশকতার মামলা

11
মামলা

পীরগঞ্জ(ঠাকুরগাঁও)প্রতিনিধিঃ ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জে সন্ত্রাস ও নাশকতার ষড়যন্ত্রের পরিকল্পনাকারী হিসেবে বিএনপির অর্ধশত নেতা কর্মীর বিরুদ্ধে গত শনিবার রাতে থানায় মামলা করেছে পুলিশ।

পুলিশ জানায়, বিএনপির অর্ধশত নেতা কর্মী ও সমর্থক জমায়েত হয়ে যান বাহন চলাচলে ক্ষতিগ্রস্থ্য করাসহ সরকারি বে-সরকারি অফিসের স্থাপনা ও বিদ্যুৎ উপকেন্দ্র ভাংচুর এবং রেল লাইন উপরে ফেলার জন্য নাশকতা মুলক বড় ধরনের কর্মকান্ড ঘটানোর ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হয়ে শনিবার সকাল সাড়ে ১১টার সময় পীরগঞ্জ পূর্ণিমা কমিউনিটি সেন্টারে দলবদ্ধ হ্য়ে ষড়যন্ত্রের পরিকল্পনা চালায়।

এ সময় এসআই রনি কুমার পাল সঙ্গীয় ফোর্সসহ পিয়াংকা হোটেল এলাকায় আইন শৃংখলার ডিউটি করার সময় গোপন সংবাদের ভিতিত্বে পূর্ণিমা কমিউনিটি সেন্টারে গেলে মামলার এজাহার নামীয় আসামীরা পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে দ্রুত ঘটনা স্থল ত্যাগ করে। এ ঘটনায় ঐদিন রাতে এস আই রনি কুমার পাল বাদী হয়ে পীরগঞ্জ থানায় বিএনপির ৩৫জনকে এজাহার নামীয় এবং আরো অজ্ঞাত নামা ১৫জন নেতা কর্মী ও সমর্থকের বিরুদ্ধে একটি সন্ত্রাস ও নাশকতার মামলা করেন।

এ বিষয়ে পীরগঞ্জ উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলার চেয়ারম্যান জিয়াউল ইসলাম জিয়াকে প্রশ্ন করা হলে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, আমরা বিএনপির ৪০তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে সকাল সাড়ে ১১টার সময় পীরগঞ্জ পূর্ণিমা কমিউনিটি সেন্টারে থানা পুলিশের উপস্থিতিতে শান্তি পূর্ণভাবে দোয়া খায়ের সম্পন্ন করেছি। এ কারণে মামলাটি সম্পূর্ণ মিথ্যা বলে তার দাবি।
পীরগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ বজলুর রশিদ জানান কাউকে গ্রেফতার করা সম্ভব হয়নি।