পাটকেলঘাটায় হারুন-অর রশিদ কলেজে এইচ,এস,সি পরীক্ষায় ফল বিপর্যয়

104
পাটকেলঘাটা হারুন-অর রশিদ কলেজ
পাটকেলঘাটা হারুন-অর রশিদ পাটকেলঘাটা হারুন-অর রশিদ কলেজ

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ বর্তমান ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়তে সুশিক্ষার কোন বিকল্প নেই। সরকার শিক্ষা ব্যবস্থাকে আরো ছাত্র-ছাত্রীদের নিকট যুগোপযোগী করে গড়তে তুলতে সৃজনশীল পদ্ধতি অবলম্বন করছে। ইতিমধ্যে উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ে এ পদ্ধতির ব্যবহার শুরু হয়েছে। বর্তমান সরকারও মান সম্মত শিক্ষা ব্যবস্থার উপর গুরুত্বপূর্ন দায়িত্ব পালন করে চলেছেন। পাটকেরঘাটা হারুণ-অর রশিদ কলেজের এইস,এস,সি পরীক্ষায় -২০১৮ সালে ১৯০ জনের পরীক্ষার্থীর মধ্যে কৃতকার্য হয়েেেছ মাত্র ৬৮জন, এত বড় ধরনের ফলাফল বিপর্যয় হওয়ার পিছনে কি কারন তা নিয়ে ম্যানেজিং কমিটি ও শিক্ষকদের মধ্যে দেখা দেখা দিয়েছে আলোচনা ও সমালোচনা ।

অনুন্ধানেদেখা গেছে,পাটকেলঘাটা হারুণ-অর রশিদ কলেজের অবকাঠামোগত উন্নয়ন হলেও প্রকৃতপক্ষে শিক্ষার মানউন্নয়ন হয়নি। সংশ্রি¬ষ্টদের আন্তরিকতার অভাব, দলীয় গ্রুপিং, দায়িত্ব অবহেলা ,ঘরোয়া কোচিং বানিজ্য এর জন্য দায়ী বলে সচেতন মহল ও অভিভাবকগনের ধারনা ।এতিহ্যবাহী এ বিদ্যাপিঠটি শিক্ষা ব্যবস্থা দিন দিন ভর্তি হার কমে যাচ্ছে । এ শিক্ষা প্রতিষ্টানটি দীর্ঘদিন ধরে ফল বিপর্যয় আসছে। কিন্তু সংশ্রিষ্ট কারো মাথা ব্যাথা নেই ।

সরকারের বাস্তবমুখী পদক্ষেপে পিতৃ-মাতৃ স্নেহের মাধ্যমে পাঠদানের পরিবর্তে শিক্ষকরা খামখেয়ালীপনা ক্লাস নেওয়ার কারনে শিক্ষার মান ক্রমাগত নিম্ন মুখী হতে চলেছে। শিক্ষা খাতে বর্তমান সরকার সর্বোচ্চ বরাদ্ধ দিয়ে শিক্ষার এগিয়ে নেওয়ার জন্য নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন।

এ ব্যাপারে পাটকেলঘাটা হারুণ-অর রশিদ কলেজ (ভাবপ্রাপ্ত) অধ্যক্ষ হাবিবুব রহমানের সাথে এ প্রতিবেদকের কথা হলে কলেজ ফল বিপযর্য়ে বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি জানান শিক্ষকদের মধ্যে কোন্দলের কারনে মনে বলে মনে করেন । এ দিকে স্থানীয় সচেতন অভিভাবক মহল শিক্ষা মন্ত্রনালয়ের সংশি¬ষ্ট দপ্তরের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন।