সর্বশেষ সংবাদ

দেবহাটা বাজারের “দত্ত স্টোর” এ মেয়াদ উত্তীর্ণ শিশু খাদ্য বিক্রির অভিযোগ!

কে,এম,রেজাউল করিম দেবহাটা ব্যুরো: দেবহাটা বাজারের দত্ত স্টোরে মেয়াদ উত্তীর্ণ শিশু খাদ্য বিক্রির অভিযোগ উঠেছে। এঘটনা জানাজানি হওয়ায় গোপনে ক্রেতার কাছে টাকা ফিরিয়ে দিয়েছে দোকানদার রাম দত্ত।

ভূক্তভোগী উপজেলার সুশীলগাঁতী গ্রামের আব্দুল গণির ছেলে শাহাবুদ্দীন জানান, আমি দুই দিন আগে আমার শিশু সন্তানের জন্য নুডলস কিনতে যায় দেবহাটা বাজারে অবস্থিত রাম দত্তের দোকানে। আমি তাকে ৫০টাকার একটি প্যাকেট চাইলে তিনি সেটা না দিয়ে ১০টাকা দামের ৫টি মিনি প্যাকেট দেন। তিনি বলেন, এই নুডলস গুলো ভাল এবং শিশুদের খাওয়ার উপযোগী। আমি সহজ সরল হওয়ায় তার কথা বিশ্বাস করে ১০টাকা মূল্যের ৫টি মিনি প্যাকেট বাড়িতে নিয়ে যায়। পরদিন আমার স্ত্রী শিশু সন্তানের জন্য রান্না করতে গেলে নষ্ট দেখতে পায়। এসময় আমি বিষয়টি স্থানীয়দেরকে জানালে বাকি ৪টি প্যাকেটে দেখা যায় একমাস পূর্বেই মেয়াদ উত্তীর্ন হয়ে গেছে।

বিষয়টি নিয়ে রাম দত্তের কাছে গেলে তিনি আমার কথায় কোন প্রকান কর্ণপাত করিনি। শুক্রবার প্যাকেট গুলো দেবহাটা বাজারে কয়েকজন ব্যক্তিকে দেখালে বিষয়টি জানাজানি হওয়ায় তড়িঘড়ি করে আমার টাকা ফিরিয়ে দেয় রাম দত্ত।

বিষয়টি নিয়ে স্থানীয়রা জানান, রাম দীর্ঘ দিন ধরে দেবহাটা বাজারে দোকান পরিচালনা করে আসছে। তার দোকানটি বড় দোকান হওয়ায় তিনি খুচরা ও পাইকারি দামে সীমিত লাভে মাল বিক্রি করেন। তাই তার দোকানে সাধারণ ক্রেতারা একটু বেশি যায়। আর এই সুযোগে রাম দত্ত অশিক্ষিত সাধারণ মানুষদের কাছে কৌশলে মেয়াদ উত্তীর্ন খাবার বিক্রি করে।

এবিষয়ে দত্ত স্টোর এর স্বত্ত্বাধীকারী রাম দত্ত ঘটনার কথা স্বীকার করে বলেন, আমি গত দুই দিন পূর্বে কোম্পানীর কাছ থেকে মাল নিয়েছি। কিন্তু উক্ত মাল গুলো ১মাস মেয়াদ উত্তীর্ন হয়েছে আমি জানি না। তবে কার কাছ থেকে মেয়াদ উত্তীর্ন শিশু খাদ্য নিয়েছেন সে বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি তাদের কাইকে চেনেন না বলে জানান।

error: লাল সবুজের কথা !!