সর্বশেষ সংবাদ

গোপালগঞ্জের ডিসি সাতক্ষীরার মেয়ে আর সাতক্ষীরার ডিসি গোপালগঞ্জের ছেলে

মোঃ সদরুল কাদির (শাওন), সাতক্ষীরা:: সাতক্ষীরায় জেলা প্রশাসক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীর কৃতি সন্তান এসএম মোস্তফা কামাল মোরাদ। এদিকে গোপালগঞ্জের জেলা প্রশাসক হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন সাতক্ষীরার তালা উপজেলার শাহিদা সুলতানা। লক্ষনীয় বিষয় হচ্ছে, গোপালগঞ্জের সন্তান সাতক্ষীরায় জেলা প্রশাসক আবার সাতক্ষীরার সন্তান গোপালগঞ্জের জেলা প্রশাসক। এ যেন অদল বদল। সাতক্ষীরার জেলা প্রশাসক এসএম মোস্তফা কামাল এর আগে গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ের উপসচিব পদে কর্মরত ছিলেন।

২১তম বিসিএস এর এই কর্মকর্তা ২০০৮ সালে সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলায় সহকারি কমিশনার (ভূমি) পদে কর্মরত ছিলেন। পরে তিনি সাতক্ষীরায় স্বল্প সময়ের জন্য অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেটেরও দায়িত্ব পালন করেন। অন্যদিকে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের বিশেষ ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (উপ-সচিব) শাহিদা সুলতানা গোপালগঞ্জের নতুন ডিসি হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন।

বেগম শাহিদা সুলতানা ২১তম বিসিএস এ এডমিন ক্যাডারে যোগদান করেন। তিনি পিরোজপুরের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রট, যশোর জেলার অভয়নগর উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি), কেশবপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, বাংলাদেশ এম্বাসি, মালয়েশিয়া এর ফার্স্ট সেক্রেটারি, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের উপ-সচিবসহ সরকারের বিভিন্ন দপ্তরে দায়িত্ব পালন করেছেন।

চাকরির বাইরে শাহিদা সুলতানা একজন খ্যাতিমান কবি। এ পর্যন্ত তার পাঁচটি কবিতার বই (বসন্তের ধ্রুপদি আহ্বান, মৃত্যুকে বিরহ ভেবে ভুল হয়, কলাবতি ফুল, বেড়াজাল, এক বিষন্ন রোববারে) প্রকাশিত হয়েছে। শাহিদা সুলতানা সাতক্ষীরার তালা শহীদ মুক্তিযোদ্ধা মহাবিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ উপজেলার জাতপুর গ্রামের এমএম এনামুল ইসলামের সহধর্মিনী। তিনি ঢাকাস্থ তালা উপজেলা সমিতির সহ-সভাপতি।

error: লাল সবুজের কথা !!