কলারোয়ায় জুয়ার বোর্ড বন্ধ করায় ওয়ার্ড আ.লীগের সভাপতির কাছে ২লাখ টাকা চাঁদা দাবী

3
কলারোয়ায় জুয়ার বোর্ড বন্ধ করায় ওয়ার্ড আ.লীগের সভাপতির কাছে ২লাখ টাকা চাঁদা দাবী

কলারোয়া(সাতক্ষীরা)প্রতিনিধিঃ কলারোয়ায় এক ওয়ার্ড আ.লীগের সভাপতির কাছে ২লাখ টাকা চাঁদা দাবী করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। ঘটনাটি ঘটেছে-কলারোয়া উপজেলার দেয়াড়ার-কাশিয়াডাঙ্গা গ্রামে। বুধবার বিকালে দেয়াড়ার-কাশিয়াডাঙ্গা ওয়ার্ড আ.লীগের সভাপতি শেখ রফিকুল ইসলাম খোকা জানান-দেয়াড়ার বিভিন্ন স্থানে দীর্ঘদিন ধরে কলাটুপি গ্রামের নেদা, কাশিয়াডাঙ্গা গ্রামের রেজাউল মোড়ল ও ইবাদ আলী জুয়া(তাস)খেলা করে আসছে। এতে করে এলাকায় ছোট খাট চুরি সংঘটিত হচ্ছে।

সপ্তাহ খানিক আগে তার ছেলে শেখ তৈয়েব আলী ৯৯৯ এ ফোন করে পুলিশকে বিষয়টি অবগতি করেন। সাথে সাথে থানা পুলিশ খেলাটি বন্ধ করে দেন। এর পরে নেদা ও রেজাউল মোড়ল দলবদ্ধ হয়ে তার ছেলেকে হন্য হয়ে খুজে বেড়াচ্ছে। মঙ্গলবার বেলা ১০টার দিকে নেদা ফোন করে দেয়াড়ার-কাশিয়াডাঙ্গা ওয়ার্ড আ.লীগের সভাপতি শেখ রফিকুল ইসলাম খোকাকে জানায়-তাদের জুয়ার বোর্ড পুলিশ দিয়ে ভেঙ্গে দেয়াতে ২লাখ টাকা ক্ষতি হয়েছে।

সে টাকা আপনাকে দিতে হবে। টাকা না দিলে ছেলেকে তাদের হাতে তুলে দিতে হবে। তা না হলে তৈয়েব আলীর শিশু ছেলে সিরাতুল ইসলাম শান্তকে তুলে নিয়ে যাওয়ারও হুমকি দেয়া হয়। এই রেজাউল মোড়ল দেয়াড়ার-কাশিয়াডাঙ্গার ওয়ার্ড বিএনপির সাধারণ সম্পাদক। সে কেশবপুরে একটি হত্যা মামলার আসামী। সেই থেকে ওয়ার্ড আ.লীগের সভাপতি শেখ রফিকুল ইসলাম খোকার ছেলে শেখ তৈয়েব আলীকে খুজে পাওয়া যাচ্ছে না।

এদিকে বিষয়টি নিয়ে জেলা পুলিশ সুপারের দৃষ্টি আকর্ষন করেছে শেখ তৈয়েব আলীর স্ত্রী শিরিনা খাতুন। তাদের অব্যহত হুমকিতে জীবনের নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছে পুরা পরিবারটি।