কবিতা: স্বাধীনতার ডাক

মোহাম্মদ মাজহারুল ইসলাম খান

বাঙ্গালী মোরা স্বাধীন জাতি
স্বাধীন মোদের প্রাণ,
থাকবনা আর পাক শাসনে
মোদেরও আছে মান।
আয়রে সবাই আয়রে ছুটে
মুজিব দিচ্ছে ডাক,
আয়রে ছুটে ঝাঁকে ঝাঁকে
পাক-সেনাদের হাঁক।

বসে বসে অত্যাচার আর
সহ্য হয়না পিঠে,
সুযোগ পেলেই পাকের বোমা
মোদের মাথায় ফোঁটে।
হাজার হাজার পুষ্প কলি
অকালে যায় ঝরে,
মুখ বুঁজে আর এসব মোরা
নেবনা সহ্য করে।
লড়তে হলে লড়ব এবার
ধরব এবার লাঠি,
শক্ত হাতে করব লোপাট
পাক-সেনাদের ঘাঁটি।
উড়িয়ে দেব মাথার খুলি
ভেঙ্গে দেব হাড়,
বুঝিয়ে দেব কেমন লাগে
বাংলা দেশটা কার?
যা’ খুশি তাই করবে এসে
মোদের বাংলা দেশে,
আর আমরা সবই মেনে নেব
বোঁকার মত হেসে?
কেমন সাহস পাক বাহিনীর
জানের কি নাই ডর,
দিসনা রেহাই বীর-বাঙ্গালী
ধররে এবার ধর!

বুঝিয়ে দে কেমন লাগে
বাঙ্গালীদের সাজা,
মাইরের চোটে পালায় ভূতে
বুঝে নাই পাক রাজা!
বুঝিয়ে দে পাক-সেনাদের
গরম গরম চা’য়,
বাংলা দেশে থাকতে গেলে
মাসের ক’দিন যায়!
যেথায় পাবি মারবি সেথায়
কোন্ন খাতির নাই,
কেমন কইরা ছাড়েনা দেশ
দেখব এবার তাই।

একটা দাঁতের বল্ রাখেনা
পাক-শাসকের দল,
তারাই আবার বাংলায় এসে
করে বারো ছল!
হাটে মারবি, ঘাটে মারবি
মারবি নদীর জলে,
দেখবি সবাই ছুটছে দেশে
পিত্তি গলার ছলে!
বাঙ্গালীদের পিট্টি একবার
পড়ে যদি ঘাড়ে,
বুঝবে তখন ঔষধ ছাড়াই
বাতের বেরাম সারে!

বাংলা জাতি লড়তে জানে
ধরতে জানে ঘাড়,
পাক-প্রেসিডেন্ট বুঝে নাই তা’
বুঝায় দে একবার!
উচিৎ শিক্ষা পাইলে একবার
চাইব না আর পিছে,
দেখবি সবাই লেজ গুঁটিয়ে
যাচ্ছে আপন দেশে।

আমরা তখন স্বাধীন হবো
মুক্তি পাবে দেশ,
মাতৃভূমি হাসবে সুখে
কাটবে জীবন বেশ!!

error: লাল সবুজের কথা !!