আধুনিকতার ছোঁয়ায় হারিয়ে যাচ্ছে গ্রাম বাংলার “বাঁশ ও বেতে’র কুটির শিল্প”

390

ষ্টাফ রিপোর্টারঃ প্রায় বিলুপ্তির পথে বাংলার ঐতিহ্যবাহী বাঁশ ও বেতের কুটির শিল্প। বর্তমান এই ডিজিটাল যুগের বাজারে সহজলভ্য বিভিন্ন ব্র্যান্ডের প্লাস্টিকের পণ্যের জোয়ারে হারিয়ে যাচ্ছে গ্রাম বাংলার বাঁশ ও বেতের কুটির শিল্প।সাতক্ষীরা জেলার তালা উপজেলার নগরঘাটা গ্রামের ঋষিদের তৈরি এসব বাঁশ ও বেতের নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের চাহিদা ছিল এক সময় আকাশচুম্বি।

কিন্তু কালের পরিক্রমায় প্লাস্টিক সামগ্রীর কাছে হার মানতে বাধ্য হচ্ছে গ্রামীণ সমাজের নিত্য প্রয়োজনীয় বাঁশ ও বেতের তৈরি সামগ্রী সমূহ। এতে করে এসব কুটির শিল্পের সঙ্গে জড়িত পরিবাবরগুলোর আর্থিক দৈন্যতা বেড়েই চলেছে। প্রয়োজনীয় পুঁজির অভাবে বিলুপ্তির দারপ্রান্তে বাপ-দাদাদের হাতে গড়া শিল্পটি। আর এই শিল্পকে রক্ষার দাবি জানিয়েছে এসব পরিবার। তবে জীবিকার তাগিদে আর্থিক সচ্ছলতার পিছনে ছুটতে যেয়ে তাদের অনেকেই বেছে নিয়েছে এখন অন্য পেশা।

স্থানীয়দের কথা, দুনিয়ার সকল মানুষের লক্ষ্য উপরে ওঠার সেক্ষেত্রে আমরা বা কেন পিছিয়ে থাকবো। এই কাজে এখন আর তেমন ইনকাম হয় না। তাই বাধ্য হয়ে অন্য পেশা নিয়ে সবাই ব্যস্ত।

বাঁশ ও বেতের তৈরি এসব পণ্যের মধ্যে রয়েছে কুলা, চাটাই, হাঁস-মুরগির খাঁচা, সাজি, ঢাকনা, চালনি, পালা, খাঁচা, মোড়া বেতের ধামা, চেয়ার, টেবিল, দোলনা, খারাই, পাখা, বই রাখার তাক,টাবরা, ঘুনি, ডালা ও ঝুড়ি।