আওয়ামীলীগ নেতা আবুল কালাম আজাদ দেবিদ্বারে ১০৬ টি নতুন বিদুৎ সংযোগ দিলেন

93

অাবুল কালাম,দেবিদ্বার (কুমিল্লা) প্রতিনিধি: কুমিল্লা জেলার দেবিদ্বার উপজেলার ১৪ নং সুলতান পুর ইউনিয়নের কালামুড়িয়া গ্রামে গত রবিবার (১০ ‍জুন) বর্তমান সরকারের ডিজিটাল বাংলাদেশের লক্ষ্যে শেখ হাসিনার উদ্দ্যাগে ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ পৌছে দেয়ার লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছে আওয়ামী লীগের অনেক নেতা কর্মীরাই। কিন্তু বিনিময়ে প্রত্যেক মিটারে ৮,০০০ থেকে ১০,০০০ টাকা করে নিচ্ছে। আর তার ফলে সুলতানপুর ইউনিয়নের হিন্দু পল্লী নামে খ্যাত কালামুড়িয়ার প্রায় ২০০ পরিবার হারিকেনের আলোতে জীবন ঝাপন করতে হতো আজকের এই উন্নয়নের বাংলাদেশে। তারা বিভিন্ন নেতা কর্মীর কাছে দ্বারস্থ হলে ও তারা যে টাকা দাবি করে তা দিয়ে তাদের মতো দরিদ্র পরিবারের সম্ভব হচ্ছিল না আর তাতে করে এই অন্ধকারে জীবন ঝাপন করতে হত এই পরিবার গুলোর। কিন্তু প্রায় ২ মাস পূর্বে বাংলাদেশআওয়ামীলীগেরকেন্দ্রীয়উপ কমিটির সদস্য ও কুমিল্লা উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য আবুল কালাম আজাদ এই খবর পেয়ে তাদের আশ্বস্থ করেন তিনি তাদের এই সমস্যার সমাধান করার চেষ্টা করবেন। আর তার লক্ষ্যে মাত্র ৬২০ টাকা করে প্রতি মিটারে নিয়ে তাদের বাড়িতে বিদ্যুৎতের মিটার তুলে দেন।

উপস্থিত থাকা জনসম্মুখে আবুল কালাম আজাদ জানায় তার প্রথম প্রচেষ্টা হলো দেবিদ্বারে যেন কোন একটি পরিবার ও বিদ্যুৎ বঞ্চিত না হয়। আর এই বিদ্যুৎতের আলোর কারনে কোন একটা ছাত্র জীবনের শেষ আলোটুকু না নিভে যায়। আর তার পরবর্তী লক্ষ্য হলো যদি দেবিদ্বারে আর এমন অন্ধকারে কোন জনগোষ্টী থেকে থাকে তাহলে তাদের বিদ্যুৎতের আলোতে নিয়ে আসা হবে তার মূল লক্ষ্য ও ব্যাক্তিগত ইচ্ছা। তিনি আরো বলেন দেবিদ্বারে আর কেহ বিদ্যুৎতের মিটার নিয়ে বানিজ্য করতে পারবে না। আর সবাই কে সোচ্চার হওয়ার আহ্বান জানান।

মলিন চন্দ্র সরকার কৃত্তন কমিটির সভাপতি তিনি জানান আমরা এই বিদ্যুৎতের জন্য আমাদের স্থানীয় অনেক নেতার দ্বারস্থ হই।কিন্তু তারা প্রতি মিটারে প্রায় ৮,০০০ থেকে ১০,০০০ টাকার কম সংযোগ দিতে পারবে না বলে জানায়।তারা আরো জানায় তাদের ছাড়া আর কেহ মিটার সংযোগ দিতে ও পারবে না। আর তাতে করে গরীব অসহায় জনগোষ্টী প্রায় বিদ্যুৎতের আশাই ছেড়ে দিয়েছিলেন অবশেষে স্বপ্নের বাস্তবায়ন করে দিলেন আবুল কালাম আজাদ।

পুবন চন্দ্র মল্লিক কৃত্তনজাদ কেন্দ্রীয় উপ কমিটির সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য জানান, দেবিদ্বারের এই হিন্দু পল্লী নামে খ্যাত এই জনগোষ্টীর প্রায় ৯৫% ভোট নৌকার প্রতীকে যায়। তার পরে ও দেখা গেল তাদের ভাগ্য নিয়েই এক দল অসাধু নেতা কর্মীরা ছিনিমিনি খেলতে ছিল। অবশেষে আবুল কালাম আজাদের উদ্দোগে শেষ পর্যন্ত বিদ্যুৎ পেল কালামুড়িয়ার প্রায় ১০৬ টি পরিবার।

এসময় তার সাথে আরো উপস্থিত ছিলেন মো: ময়নাল হোসেন (মামুন) সাংগঠনিক সম্পাদক ১৪ নং সুলতানপুর ইউনিয়ন,মো: সফিক মেম্বার সাধারন সম্পাদক বরকামতা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ, মো: ইদ্রিস মিয়া সাবেক মেম্বার ও আওয়ামী লীগ নেতা, মো: মামুনুর রশিদ (মামুন) যুগ্ম আহ্বায়ক দেবিদ্বার উপজেলা ছাত্রলীগ,মো: সরোয়ার হোসেন (রাকিব) যুগ্ম সাধারন সম্পাদক ও সদস্য দেবিদ্বার উপজেলা ছাত্রলীগ,জনাব আবুল কালাম (আনু) যুগ্ম আহ্বায়ক দেবিদ্বার উপজেলা ছাত্রলীগ, ,সজল চন্দ্র মজুমদার সদস্য,সঞ্জিত চন্দ্র মজুমদার সদস্য প্রমুখ।